রাজশাহী, সোমবার ০৪ মার্চ ২০২৪, ২১শে ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
◈ বাঘায় আম বাগান ও ফসলি জমিতে পুকুর খননের হিড়িক, প্রশাসন নিরব ◈ ভুল চিকিৎসার কারণে ডাক্তারের বিরুদ্ধে আদালতে সাংবাদিকের মামলা ◈ রাজশাহীতে কিশোর গ্যাংয়ের ৫ সদস্য গ্রেপ্তার ◈ সাংবাদিক রেজাউল করিমের শ্বশুরের মৃত্যুতে রাজশাহী বরেন্দ্র প্রেসক্লাবের শোক ◈ লালমনিরহাটে ব্যাতিক্রমী গল্পকথার বই মেলা শুরু ◈ রাজধানীর বেইলি রোডের অগ্নিকান্ডে শোক প্রকাশ করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী ◈ রাজশাহীতে তরুনীকে উদ্ধার করলো পিবিআই ◈ রাজশাহী স্যানেটারি ব্যবসায়ী মালিক সমিতির বার্ষিক বনভোজন অনুষ্ঠিত ◈ খুলনায় মাসব্যাপী একুশে বইমেলার সমাপনী মেলায় ৪ কোটি ৭৮ লাখ ৫০ হাজার টাকার বই বিক্রি ◈ রাজশাহীতে বাংলাদেশ কৃষক সমিতি’র অবস্থান কর্মসূচি পালন,বরেন্দ্র ভবন ঘেরাও

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে পাখিদের অভয়ারণ্যে সুর মিলিয়েছে নতুন পাখি, আরও বিভিন্ন অতিথি পাখি অনান্য এলাকায়

প্রকাশিত : 02:40 PM, 29 November 2021 Monday

Private: মো.মাইনুর রহমান

হযরত শাহ মুখদম(রু:) রা; এর পূণ্য ভূমি ,শিক্ষা নগরী রাজশাহীতে শীতের শুরুতে নানান পাখির কলকাকলিতে মুখরিত থাকে বেশ কিছু এলাকায়।রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় পাখির অভয়ারণ্য।
শীতের শুরুতে নানা পরিযায়ী পাখির দেখা মেলে পাখির অভয়ারণ্য স্থল রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে। প্রতিদিনের সকাল-সন্ধ্যা পাখির কিচিরমিচিরে মুখরিত হয়ে ওঠে। তবে এবার পাখিদের সুরে নতুনকরে সুর মিলিয়েছে ‘কালিপেঁচা’ নামের নতুন একটি পাখি।
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে প্যারিস রোডের দুইপাশে চোখ ধাঁধানো গগন শিরীষ গাছে বিরল প্রজাতির এই পাখির দেখা মেলে। পাখার বাদামি রঙের কারুকাজ এবং ভিন্নধর্মী ডাক পাখিটিকে আলাদাভাবে পরিচয় করিয়ে দেয়।

‘কালিপেঁচা’ পাখির বৈজ্ঞানিক নাম Glaucidium Radiatum ও ইংরেজি নাম Jungle Owlet। গত ১৩ অক্টোবর ওই পাখি প্রথম নজরে পড়ে রাবি প্রাণিবিদ্যা বিভাগের শিক্ষক ও পাখি বিশেষজ্ঞ আনিসুজ্জামান মো. সালেহ রেজার।

জানতে চাইলে পাখি বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক আমিসুজ্জামান মো. সালেহ রেজা বলেন, ১৩ অক্টোবর সকালে হাঁটতে গিয়ে নতুন এই পাখিটি দেখি। পাখির সবকিছু দেখে মনে হয় এটি ছোট কালিপেঁচা হবে। পরে পাখিটির ছবি তুলে ও ডাক সংগ্রহ করে বাংলাদেশ বার্ড ক্লাব এবং ইন্টারন্যাশনাল বার্ড ক্লাবের ওয়েবসাইটে পোস্ট করি। এরপর এই দুটি ক্লাব ও ভারতীয় বার্ড ক্লাব নিশ্চিত করে যে এই পাখিটি ছোট ‘কালিপেঁচাই’।

তিনি আরও বলেন, এই প্রজাতির পাখি আগে দেশে দেখা যায়নি। বিভিন্ন সময় একই ধরনের পাখি দেখে অনেকে ছোট ‘কালিপেঁচা’ দেখা কথা দাবি করলেও সেটির কোন প্রমাণ নেই। তবে, এবার বিশ্ববিদ্যালয়ের প্যারিস রোডে প্রথম পাখিটি দেখা যায়। ফলে দেশের পাখি তালিকা আরও সমৃদ্ধ হলো। রাবির প্যারিস রোড কেনো আবাসস্থল হিসেবে পছন্দ করলো এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ক্যাম্পাসের আবহাওয়া ও গাছগুলো এই প্রজাতির পাখিদের বসবাসের উপযুক্ত জায়গা। তাই তারা এখানে আবাসস্থল গড়েছেন।

বাংলাদেশ বার্ড ক্লাব এবং ইন্টারন্যাশনাল বার্ড ক্লাব যৌথভাবে তাকে নিয়ে তথ্যানুসন্ধান চালায়। শেষে এর নাম লেখায় বাংলাদেশের নতুন পাখির তালিকায়। নতুন প্রজাতির এই পাখির খবর খুব দ্রুতই ছড়িয়ে পড়ে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে। এরপর থেকে দেশের আনাচ-কানাচে থেকে ছোট কালিপেঁচার ছবি তুলতে রাবিতে আসছেন পাখিপ্রেমীরা।
পাখি বিশেষজ্ঞরা জানান, বিশ্বে এ ধরনের ২৫০টি পেঁচার প্রজাতি আছে। বাংলাদেশেও ১৮টি প্রজাতি ছিল। তবে, এই পেঁচাটি অন্যটির থেকে একটু আলাদা। এর পাখার বাদামি রঙের কিছু কারুকাজ রয়েছে। যা তাকে সবার চেয়ে আলাদাভাবে পরিচয় করিয়ে দিচ্ছে। দেশে আগে কখনও ওই পাখি দেখা যায়নি। রাবির সুউচ্চ গগন শিরীষ গাছে প্রথম দেখা যায়। এই প্রজাতির পাখি এককভাবে, জোড়ায় বা ছোট দলে পাওয়া যায়।
সাধারণত খুব ভোরে এবং সন্ধ্যায় তাদের ডাক শুনতে পাওয়া যায়। পাখিটির দুটি উপ-প্রজাতি রয়েছে। একটি হলো jungle Owlet, আরেকটি হলো Asian Barret owlet পাখিটি ভারত এবং শ্রীলঙ্কার সমভূমিতে পাওয়া যায়। এছাড়া এটি আর্দ্র অঞ্চলে পাওয়া যায়। জি রেডিয়াটাম শুষ্ক বনাঞ্চলে পাওয়া যায়।

বাংলাদেশ বার্ড ক্লাবের সদস্য বলেন, এই প্রজাতির পাখি এর আগে বাংলাদেশের কোথাও কেউ দেখেনি। এছাড়া এই পাখিরা উঁচু ও অন্ধকারাচ্ছন্ন গাছে বসবাস করতে পছন্দ করে। এখন দেশের খুব কম জায়গায় প্যারিস রোডের মত সুউচ্চ গাছ আছে। ফলে তাদের সঠিক আবাস্থল না থাকার কারণেও দেখা পাওয়া যায়নি। তবে, ভারত ও শ্রীলঙ্কার সমভূমি, আর্দ্র অঞ্চল এবং জি রেডিয়াটাম শুষ্ক বনাঞ্চলে পাখিদের দেখা যায়।

বাংলাদেশ বার্ড ক্লাবের সহ-সভাপতি বলেন, এশীয়-দাগিপ্যাঁচার সঙ্গে এই নতুন এই পেঁচার কিছুটা সদৃশ্য বা মিল রয়েছে। আর এশিয়ান দাগিপ্যাঁচা সাধারণত দেশের সিলেট অঞ্চলে দেখা যায়।
এছাড়া পদ্মা নদীর বিস্তীর্ণ চরাঞ্চলে নানা প্রজাতির পাখির দেখা যাচ্ছে।এগুলো অতিথি পাখি বলে জানান বিভিন্ন পাখি বিশেষজ্ঞ।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক বাংলার সকাল'কে জানাতে ই-মেইল করুন- banglarsakal24@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

দৈনিক বাংলার সকাল'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

এই বিভাগের জনপ্রিয়

© ২০২৪ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। দৈনিক বাংলার সকাল | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, ডেভোলপ ও ডিজাইন: DONET IT