রাজশাহী, সোমবার ০৪ মার্চ ২০২৪, ২১শে ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
◈ বাঘায় আম বাগান ও ফসলি জমিতে পুকুর খননের হিড়িক, প্রশাসন নিরব ◈ ভুল চিকিৎসার কারণে ডাক্তারের বিরুদ্ধে আদালতে সাংবাদিকের মামলা ◈ রাজশাহীতে কিশোর গ্যাংয়ের ৫ সদস্য গ্রেপ্তার ◈ সাংবাদিক রেজাউল করিমের শ্বশুরের মৃত্যুতে রাজশাহী বরেন্দ্র প্রেসক্লাবের শোক ◈ লালমনিরহাটে ব্যাতিক্রমী গল্পকথার বই মেলা শুরু ◈ রাজধানীর বেইলি রোডের অগ্নিকান্ডে শোক প্রকাশ করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী ◈ রাজশাহীতে তরুনীকে উদ্ধার করলো পিবিআই ◈ রাজশাহী স্যানেটারি ব্যবসায়ী মালিক সমিতির বার্ষিক বনভোজন অনুষ্ঠিত ◈ খুলনায় মাসব্যাপী একুশে বইমেলার সমাপনী মেলায় ৪ কোটি ৭৮ লাখ ৫০ হাজার টাকার বই বিক্রি ◈ রাজশাহীতে বাংলাদেশ কৃষক সমিতি’র অবস্থান কর্মসূচি পালন,বরেন্দ্র ভবন ঘেরাও

বাবার পরিচয় দিয়ে হাসপাতাল থেকে নবজাতক চুরি

প্রকাশিত : 03:05 PM, 25 January 2022 Tuesday

বাংলার সকাল নিউজ ডেস্কঃ

হবিগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতাল থেকে বাবার পরিচয় দিয়ে এক নবজাতককে চুরি করে নিয়ে যাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। নবজাতককে হারিয়ে ভেঙে পড়েছেন শিশুটির মা, বাবাসহ স্বজনরা।

মঙ্গলবার সকালে নবজাতকদের বিশেষ সেবা ইউনিট থেকে এ চুরির ঘটনা ঘটে।

ওই শিশুটির মা ফেরদাউস আক্তার ও বাবা দেলোয়ার হোসেন শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলার মড়রা গ্রামের বাসিন্দা।

এর আগে ওই ইউনিটটি পরিচ্ছন্ন করার কথা বলে তার স্বজনদের বের করে দেন দায়িত্বরতরা। এ ঘটনায় কিংকর্তব্যবিমূঢ় হয়ে পড়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

সদর হাসপাতলের তত্ত্বাবধায়ক ডা. আমিনুল হক সরকার জানান, নবজাতক চুরি যাওয়ার ঘটনাটি জানতে পেরে তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে যান। বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানান তিনি।

সদর মডেল থানার এসআই মো. ইয়াকুব আলী জানান, খবর পেয়ে তারা তাৎক্ষণিক হাসপাতালে গেছেন। বিষয়টি তদন্ত শুরু করেছেন তারা।

ওই নবজাতকের নানি সফিনা খাতুন ও ফুফু শামসুন্নাহার জানান, ভোর সাড়ে ৬টায় নবজাতকটি স্বাভাবিকভাবে ডেলিভারি হয়। এর পর তার কান্না থামছিল না। একপর্যায়ে তাকে নিয়ে নবজাতকদের বিশেষ সেবা ইউনিটে ভর্তি করা হয়। সেখান থেকে কিছু ওষুধ নিয়ে আসতে বলা হয়। ওষুধ নিয়ে যাওয়ার পর ঝাড়ু দেওয়ার কথা বলে তাদের বের করে দেন দায়িত্বরতরা। পরে তারা ভেতরে ঢুকে দেখতে পান নবজাতকটি নেই।

দায়িত্বরতরা জানান, তার বাবা এসে দুধ খাওয়ানোর কথা বলে শিশুটিকে নিয়ে গেছে। অথচ এ সময় তার বাবা হাসপাতালে আসেননি।

নবজাতকটির বাবা দেলোয়ার হোসেন জানান, তিনি বাড়িতে ছিলেন। ছেলে হয়েছে খবর পেয়ে সকালে হাসপাতালে এসে জানতে পারেন তার সন্তান চুরি হয়ে গেছে। তিনি সন্তান ফেরত চেয়ে জড়িতদের শাস্তি দাবি করেন।

সদর হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, সোমবার সন্তান জন্ম দিতে সদর আধুনিক হাসপাতালের গাইনি ওয়ার্ডে ভর্তি হন ফেরদাউস আক্তার। মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৬টায় তিনি স্বাভাবিকভাবেই পুত্রসন্তান প্রসব করেন। এর পর শিশুটি অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে নবজাতকদের বিশেষ সেবা ইউনিটে ভর্তি করা হয়।

সকাল ৯টার দিকে ইউনিটি পরিচ্ছন্ন করার কথা বলে ওই ইউনিটে ভর্তি সব নবজাতকের স্বজনদের বের করে দেন দায়িত্বরতরা। কিছুক্ষণ পর সেখানে প্রবেশ করে স্বজনরা দেখতে পান তোয়ালে পড়ে আছে। কিন্তু নবজাতক নেই। এ সময় তারা চিৎকার শুরু করলে দায়িত্বরতরা স্বজনদের জানান নবজাতকটির বাবা দুধ খাওয়ানোর কথা বলে তাকে নিয়ে গেছে। সঙ্গে সঙ্গে হাসপাতালে বিষয়টি জানাজানি হলে হুলস্থুল পড়ে যায়।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক বাংলার সকাল'কে জানাতে ই-মেইল করুন- banglarsakal24@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

দৈনিক বাংলার সকাল'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২৪ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। দৈনিক বাংলার সকাল | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, ডেভোলপ ও ডিজাইন: DONET IT